ক্লায়েন্ট বাজেট কমাতে চাইলে কিভাবে সেটা হ্যান্ডেল করবেন?

ফিক্সড রেট অথবা আওয়ারলি কাজে প্রায়ই দেখা যায় ক্লায়েন্ট বাজেট কমাতে চায়। তখন আমরা যারা কাজ করি তারা অনেক সময়ই দ্বিধায় পরে যাই যে কি করা উচিৎ। আমি যা যা করি সেগুলো বলছি:

১) ফিক্সড রেট এর কাজে মাইলস্টোন করে প্রপোজাল দেই, এতে করে ক্লিয়ার আন্ডারস্ট্যান্ডিং থাকে কোন কাজে কত লাগতে পারে, এক্ষেত্রে ক্লায়েন্ট রেট নিয়ে ঝামেলা কম করে।

২) ফিক্সড রেট এর কাজে শেষ মাইলস্টোন সাধারণত রিভিশন বা অপ্টিমাইজেশন এর জন্য রাখা হয়, সেক্ষেত্রে সে ধাপে কিছুটা ছাড় দিতে পারেন, কেননা ডেভেলপমেন্ট এর সময়ই আল্টিমেটলি রিভিশন এর কাজ করে ফেলতে হয়।

৩) আওয়ারলি কাজে রেট কমাতে বললে মত কত ঘন্টার কাজ হবে তার উপর নির্ভর করে ছাড় আসে। ৫০ ঘন্টার উপরে কাজ না হলে, সুন্দর করে ভদ্র ভাষায় বলে দেই যে রেট কমাতে পারবো না।

৪) অনেক সময় ক্লায়েন্টরা বলে আমার এই প্রজেক্টে অনেক টাকা অলরেডি নষ্ট হয়েছে, অথবা এটার বাজেট কম, চ্যারিটি কাজ ইত্যাদি ইত্যাদি, সেক্ষেত্রে সাধারণত আমি বলি কাজের কোয়ালিটি আমি সবসময় বেটার রাখতে চেষ্টা করি এবং সেজন্য এফোর্ট এবং পেমেন্টটাও আমাকে সেভাবেই সেট করতে হয়। সেক্ষেত্রে আমার বাজেট কমানোর অপশন নেই, আর এজন্য দুঃখ প্রকাশ করি।

সাধারণত এ পর্যন্ত কথার পরই কাজের ব্যাপারে ফাইনাল কল চলে আসে। পাওয়া অথবা না পাওয়া।

 


শেষ দুটো কথা:

১. কাজের ব্যপারে কনফিডেন্ট না হয়ে বিড করবেন না।
২. কনফিডেন্ট হলেই কাজ করবেন এবং কখনোই আন্ডার পেমেন্ট এ কাজ করবেন না। ১০-২০% এদিক সেদিক হতে পারে কিন্তু সেটা যেন এমন না হয় যা মার্কেটে বাজে প্রভাব ফেলে।

 


কেমন হলো জানাবেন। ভাল লাগলে শেয়ার করতে পারেন বন্ধুদের সাথে।  কোণ প্রশ্ন থাকলে কমেন্ট সেকশনে জানাতে পারেন। ধন্যবাদ সবাইকে।

Kazi Mamun

Kazi Mamun

আমি কাজী মামুন, পেশায় ওয়েব ডেভেলপার। ইউ.আই. ইউ.এক্স এবং ওয়ার্ডপ্রেস নিয়েই কাজ করা হয়। এর বাইরে নতুন নতুন গ্যাজেট নিয়ে ঘাটা-ঘাটি করতে ভাল লাগে। টেকনোলজি নিয়ে টুকটাক লেখালেখি, মাঝে মাঝে ইউটিউব ভিডিও বা পডকাস্ট করতে ভাল লাগে।

2 Comments

  • Martuza hasan says:

    সবই ঠিক আছে। লাস্ট পয়েন্ট নিয়ে কথা। যেকোনো ইন্ডাস্ট্রিজ এ এমন কিছু লোক বা কোম্পানি থাকে যারা আন্ডার রেট করে কাজ করে। শুধু এই আন্ডার রেটের কারনে অনেক ভালো ক্লাইন্ড নস্ট হয়ে যায়। যে কোনো ইন্ডাস্ট্রিরির একটা আদর্শ মান থাকে কাজ করার। এই আডিয়ালজিটা অল্পসংখ্যক মানুষ বা প্রতিষ্ঠান নস্ট করে।
    ভাই আন্ডার রেট নিয়ে একটু বেশি লিখবেন।

    • Kazi Mamun says:

      ধন্যবাদ।
      পেমেন্ট বা হাওয়ারলি রেট খুবই কমপ্লিকেটেড একটা ব্যপার। হুট করেই একটা নম্বর বলে দেয়া যায়না।
      আর কাজের ধরন এবং অভিজ্ঞতা অনুযায়ী রেটটা নির্ধারণ করতে হবে।

      চেষ্টা করবো ভবিষ্যতে এ ব্যপারে কিছু লেখা যায় কিনা।

আপনার মতামত দিন...